কুমিল্লার আদালতে নাশকতার মামলায় খালেদা জিয়ার জামিন নামঞ্জুর

আবুল কালাম আজাদ ভূইয়া, কুমিল্লা থেকে : কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে কাভার্ডভ্যান পোড়ানোর মামলায় খালেদা জিয়ার জামিন শুনানি শেষে আদালত জামিন নামঞ্জুরের আদেশ দিয়েছেন। বিকেল ৫ টায় জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচার কে এম শামছুল আলম এ রায় দেন। বৃহস্পতিবার সকালে বাদী ও রাষ্ট্রপক্ষের জামিন শুনানী শেষে জেলা ও দায়রা জজের বিচারক কে এম শামছুল আলম তাৎক্ষনিক কোনো আদেশ না দিয়ে আজ তা বৃহস্পতিবার বিকেল ৩ টায় দেয়া হবে বলে এজলাস ত্যাগ করেন।

এদিকে বুধবার বিকেলে পূর্ব নির্ধারিত জামিনের শুনানী শেষে কুমিল্লার জেলা ও দায়রা জজ আদালতে খালেদা জিয়ার জামিন শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। শুনানিতে খালেদা জিয়ার পক্ষে আইনজীবীরা তাদের বক্তব্য পেশের পর রাষ্ট্রপক্ষ তাদের বক্তব্য পড়ে শোনান। এসময় রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবীরা অধিকতর শুনানীর জন্য সময় আবেদন করলে কুমিল্লা জেলা ও দায়রা জজ বিচারক কে এম সামছুল আলম আজ ১৩ সেপ্টেম্বর সকাল সাড়ে নটায় অধিকতর শুনানির জন্য পরবর্তী দিন ধার্য করেন মামলার কার্ষক্রমের মুলতবী করেন।

বৃহস্পাতিবার সকাল সাড়ে ৯টায় আবারো জামিন শুনানি শুরু হয়ে সাড়ে ১১টায় উভয় পক্ষের শুনানি শেষে বিকাল ৫টায় বেগম খালেদা জিয়ার জামিনের আবেদন নামঞ্জুর আদেশ দেন কুমিল্লা জেলা ও দায়রা জজ বিচারক কে এম সামছুল আলম। জামিন শুনানিকালে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ছিলেন পিপি এড. মোস্তাফিজুর রহমান লিটনসহ আওয়ামীপন্থী আইনজীবীরা এবং খালেদা জিয়ার পক্ষে আইনজীবী ছিলেন হাইকোর্টের এডভোকেট কাইয়ূমুল হক রিংকু, এডভোকেট তাইফুর আলমসহ অনেকে। খালেদা জিয়ার পক্ষে আইনজীবী এডভোকেট কাইয়ূমুল হক রিংক বলেন, মামলার নথিপত্র সংগ্রহ করে তারা উচ্চ আদালতে জামিন চাইবেন।

উল্লেখ্য, ২০১৫ সালের ২৫ জানুয়ারি রোববার বেলা ১১টায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের চৌদ্দগ্রাম উপজেলা সদরের পৌর এলাকার হায়দারপুল নামক স্থানে একটি কাভার্ডভ্যানে আগুন দেয়ার ঘটনা ঘটে। ২০১৫ সালের ২৬ জানুয়ারি সোমবার চৌদ্দগ্রাম থানার এসআই নুরুজ্জামান হাওলাদার বাদি হয়ে থানায় বিএনপি চেয়ারপারসনসহ ২০ দলের স্থানীয় ৩২ জনের বিরুদ্ধে মামলাটি করা হয়। মামলায় খালেদা জিয়াকে হুকুমের আসামী করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *