নগ্ন হয়ে প্ল্যাকার্ড হাতে হেঁটে বেড়াচ্ছেন স্প্যানিশ তরুণী!

অনলাইন ডেস্ক: ভারতে আসার কিছুদিন পর থেকেই আর খোঁজ নেই জার্মান প্রেমিক রবার্টের। শেষবার তার সঙ্গে দিল্লির পাহারগঞ্জ এলাকা থেকেই ভিডিও কনফারেন্সে কথা বলেছিলেন রবার্ট। এরপর পাহারগঞ্জ এলাকায় নগ্ন হয়ে প্ল্যাকার্ড হাতে হেঁটে বেড়াচ্ছেন স্প্যানিশ তরুণী লোরা। উদ্দেশ্য প্রেমিক রবার্টকে খুঁজে বের করা। তবে এটা বাস্তবের কোনো ঘটনা নয়, রুপালি পর্দায় এমন একটি ঘটনা তুলে ধরেছেন পরিচালক রাকেশ রঞ্জন কুমার।

গল্পের কাহিনীতে দেখা যাবে, জার্মান যুবকের নিখোঁজ হওয়ার ঘটনা ঘিরে সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত হচ্ছে একের পর এক খবর। আবার রবার্ট আদৌ জীবত রয়েছে কিনা তা নিয়ে রয়েছে ধোঁয়াশা। থানা, পুলিশ, প্রশাসন সব তোলপাড় হচ্ছে। এদিকে পাহাড়গঞ্জে নিজেদের রাজত্ব চালাচ্ছে জীতেন্দ্র তোমর ও মুন্নারা। তবে কি রবার্টের নিখোঁজ হওয়ার পিছনে তাদের হাত রয়েছে? যদিও রবার্টের খোঁজ না পেয়ে কোনোভাবেই ভারত ছাড়তে রাজি নন স্প্যানিশ তরুণী লোরা। এদিনে প্রেমিকের খোঁজ করতে এসে একের পর এক দুর্নীতি সামনে আসে লোরার। শেষ পর্যন্ত লোরা কি তার রবার্টের খোঁজ পাবে? তা জানতে হলে দেখতে হবে পাহাড়গঞ্জ।

গতকাল শুক্রবারই মুক্তি পেয়েছে পরিচালক রাকেশ রঞ্জন কুমারের এই ছবিটি। ভারতীয় গণমাধ্যম বলছে, এতে দিল্লির পাহারগঞ্জ এলাকাকে খারাপভাবে তুলে ধরা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন স্থানীয়রা। উঠেছে আরও অনেক বিতর্ক। ছবিটি দর্শকদের মনে কতটা দাগ কাটে এখন সেটাই দেখার বিষয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *