‘আমি মুখ খুললে কাদের সাহেবের রাজনীতি শেষ হয়ে যাবে’

অনলাইন ডেস্ক : এরশাদ-বিদিশার ছেলে এরিককে খাবার না দেয়াসহ শারীরিক নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। রাজধানীর বারিধারার প্রেসিডেন্ট পার্কের বাড়িতে বিদিশা ও এরিককে অবরুদ্ধ করে রাখা হয়েছে বলেও অভিযোগ করেছেন বিদিশা।

গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় এরিকের ফোন পেয়ে বারিধারায় সাবেক প্রেসিডেন্ট হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের বাসভবনে যান বিদিশা। এর পর থেকেই এরিক ও তিনি অবরুদ্ধ আছেন বলে অভিযোগ করেন।

তবে তাদের অবরুদ্ধ করার অভিযোগ অস্বীকার করে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদের বলেন, সময়মতো সবকিছু জাতির সামনে পরিস্কার করা হবে। শিগগির তিনি একটি বিবৃতি দিয়ে সব কিছু পরিস্কার করবেন বলেও জানান।

এদিকে বিদিশা দাবি করেন, তিন দিন ধরে প্রেসিডেন্ট পার্কে এরিককে নিয়ে অবরুদ্ধ অবস্থায় রয়েছেন তিনি। টেলিফোনে সাংবাদিকদের তিনি জানান, কোনোক্রমেই এরিকের কাছ থেকে আলাদা করা যাবে না তাকে।

তিনি বলেন, আমার লাশ বের হয়ে গেলেও আমার ছেলেকে নিয়ে কিছু হতে দেব না। আমি মুখ খুললে কাদের সাহেবের রাজনীতি শেষ হয়ে যাবে।

এরিক এরশাদ জানান, ‘তাকে শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করা হয়েছে। এমনকি নিয়মিত তাকে খাবার দেয়া হচ্ছে না। আমাদের আটকে রেখেছে। কাগজপত্র সাইন করিয়েছে। আব্বার অনেক জিনিস নিয়ে গেছে। বেরোতে পারছি না, বেরোলে আর ঢুকতে পারবো না এজন্য।’

তবে এসব অভিযোগ নিয়ে জিএম কাদের বলেন, এসব অভিযোগ আমি মানছি না। আমি বিশ্বাস করি দেশবাসীও আমার বিরুদ্ধে এমন অভিযোগ মেনে নেবেন না।

তিনি জানান, এরিককে তার কাছে রাখার ব্যাপারে হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ মৃত্যুর আগে দিক নির্দেশনা দিয়ে গেছেন। তাই এরিককে তিনি বিদিশার কাছে দিতে পারেন না।

Check Also

এরশাদকে নিয়ে বিদিশার আবেগঘন স্ট্যাটাস

ফার্স্ট নিউজ ডেস্ক : সিঙ্গাপুরে চিকিৎসাধীন হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের মৃত্যুর যে গুঞ্জন উঠেছে তা ‘গুজব’ …

জাতীয় পার্টির নিয়ন্ত্রণ কার হাতে?

বিবিসির প্রতিবেদন অনলাইন ডেস্ক : সংসদে বিরোধী দলীয় নেত্রী রওশন এরশাদ জাতীয় পার্টির মন্ত্রীদের মন্ত্রিসভা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *