ঝালকাঠিতে করোনায় অন্তঃসত্ত্বা বিচারকের মৃত্যু

গাজী মো. গিয়াস উদ্দিন বশির, ঝালকাঠি থেকে: ঝালকাঠির সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোসাঃ সানিয়া আক্তার (৩০) করোনা আক্রান্ত হয়ে আজ বুধবার সকাল সাড়ে এগারোটায় বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন।

ঝালকাঠি জেলা জজ আদালতের নাজির আবুল কালাম আজাদ সানিয়া আক্তারের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। সানিয়া আক্তার এবং তার স্বামী ঝালকাঠির সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট এ.এইচ.এম ইমরানুর রহমান গত ১২ জুলাই করোনা পজিটিভ হন। সানিয়া আক্তার সাত মাসের অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন ।

ঝালকাঠি চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের প্রশাসনিক কর্মকর্তা সেলিম জাহান জানান, শ্বাসকষ্ট বেড়ে যাওয়ায় গত ১৪ জুলাই তাকে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়।

সানিয়া আক্তার ১৯৯২ সালে নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার উপজেলায় জন্মগ্রহণ করেন। জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইন বিষয়ে অনার্স-মাস্টার্স শেষ করে বাংলাদেশ জুডিসিয়াল সার্ভিসের দশম ব্যাচে ২০১৮ সালে বিচারক হিসেবে নিয়োগ পান । ২০১৯ সালে তিনি ঝালকাঠিতে জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট হিসেবে যোগদান করেন । তিনি নারাণেগঞ্জ জেলার আড়াইহাজার উপজেলার হোগলাকান্দা গ্রামের আব্দুর রশিদের মেয়ে ।

সানিয়ার স্বামী এ.এইচ.এম ইমরানুর রহমান বাংলাদেশ জুডিসিয়াল সার্ভিসের নবম ব্যাচে বিচারক হিসেবে নিয়োগ পান। তার গ্রামের বাড়ি বরিশাল জেলার মুলাদি উপজেলার টুংচর গ্রামে।

সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট এ.এইচ.এম ইমরানুর রহমান জানান, আজ বুধবার বিকালে আমার স্ত্রী সানিয়া আক্তারের মরদেহ নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার উপজেলার গ্রামের বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হবে । সেখানে জানাজা শেষে লাশ আমার গ্রামের বাড়িতে নিয়ে আসা হবে ।

বৃহস্পতিবার আমার গ্রামের বাড়ি মুলাদি উপজেলার টুংচর গ্রামে দাফন সম্পন্ন হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *