বার্সা সমর্থকদের আশার পালে হাওয়া দিলেন মেসি

স্পোর্টস ডেস্ক: ১৩ বছর বয়সে বার্সেলোনার সঙ্গে পথচলার শুরু লিওনেল মেসির। নানা কারণে দুই দশকের সেই সম্পর্ক গত আগস্টে ভেঙে যেতে বসেছিল। ট্রান্সফার ফির মারপ্যাঁচে আটকে চলতি মৌসুমের শেষ পর্যন্ত বার্সেলোনায় থেকে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন রেকর্ড ছয়বারের বর্ষসেরা ফুটবলার। আগামী বছরের জুনে বার্সেলোনার সঙ্গে চুক্তি শেষ মেসির।

আর্জেন্টাইন মহাতারকা নতুন মৌসুমে কি নতুন ঠিকানায় নাম লেখাবেন? নাকি ক্যারিয়ারের শেষ অংশটুকুও কাটিয়ে দিবেন বার্সেলোনায়? এমন প্রশ্নই ঘুরপাক খাচ্ছে মেসি ভক্তদের মনে। আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড সম্প্রতি সাক্ষাতকার দিয়েছেন স্প্যানিশ টেলিভিশন লা সেক্সটাকে। তার কিছু অংশ প্রকাশ করেছে তারা। সেখানে বলা মেসির কথায় বার্সা সমর্থকদের আশার পালে হাওয়া লেগেছে।

গত মৌসুমের চ্যাম্পিয়নস লীগে বায়ার্ন মিউনিখের কাছে ৮-২ গোলে হারে বার্সেলোনা। জেতেনি কোন ট্রফি। চলমান মৌসুমেও নেই পারফরমেন্সের ধারাবাহিকতা। পিছিয়ে পড়েছে লা লিগার শিরোপা দৌড় থেকেও। বর্তমানের বার্সেলোনাকে নিয়ে তবুও খুশি মেসি। তিনি বলেন, ‘সত্যি কথা বলতে আমি এই বার্সেলোনাকে নিয়ে ভালো আছি। এটা ঠিক যে গ্রীষ্মের শুরুতে খুবই কঠিন সময় পার করতে হয়েছে। সমস্যার শুরু হয়েছিল তারও আগে থেকে। যা গ্রীষ্মের শুরুর দিকেও অব্যাহত ছিল। তবে এখন আমি ভালো আছি। বাকি মৌসুমে বার্সেলোনার হয়ে লড়াই করতে আমি তৈরি। আমি সত্যিই দারুণ রোমাঞ্চিত মৌসুমের বাকি অংশ নিয়ে। আমি জানি ক্লাব এখন মাঠ এবং প্রশাসনিকভাবে কঠিন সময় পার করছে। তবে আমি আগ্রহী (শিরোপা জয়ের জন্য)।’

বার্সেলোনায় এমন সুখী মেসিকে দেখে আশার পালে হাওয়া লেগেছে সমর্থকদের। বিভিন্ন সময় সংবাদমাধ্যমে এসেছে, মেসিকে দলে ভেড়ানোর জন্য তৈরি ম্যানচেস্টার সিটি ও প্যারিস সেন্ট জার্মেই (পিএসজি)। মেসিকে পাঁচবছরের জন্য ৭০০ মিলিয়ন ইউরো দিতে চায় ম্যানসিটি। যে ক্লাবের দায়িত্বে রয়েছেন মেসির এক সময়ের গুরু পেপ গার্দিওলা। মেসির ঘনিষ্ঠ বন্ধু সার্জিও আগুয়েরোও রয়েছেন ইংলিশ জায়ান্টদের টেন্টে। চলতি বছরের শুরুতে পিএসজির ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড নেইমার জানিয়েছে, আরো একবার জুটি বেঁধে খেলতে চান মেসির সঙ্গে। ব্রাজিলিয়ান তারকার সঙ্গে মেসির গভীর বন্ধুত্ব সবারই জানা। গত আগস্টে মেসিকে পিএসজিতে নেয়ার চেষ্টা করেছিলেন নেইমার; এমন খবরও এসেছে সংবাদমাধ্যমে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *