সবচেয়ে দামি ফুটবলার রাশফোর্ড, ১০০ জনেও নেই নেইমার-রোনালদো

স্পোর্টস ডেস্ক: ২০১৭ সালে বার্সেলোনা থেকে দলবদলের বিশ্বরেকর্ড গড়ে ২২ কোটি ২০ লাখ ইউরোর ট্রান্সফারে প্যারিস সেইন্ট জার্মেইয়ে পাড়ি দেন নেইমার। তবে এই মুহূর্তে দলবদলের বাজারে সবেচেয়ে দামি ফুটবলারের তালিকায় শীর্ষ ১০০ জনেও নেই এ ব্রাজিলিয়ান স্ট্রাইকারের নাম। ১০০ জনে নাম নেই ফুটবলের আরেক সুপারস্টার ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোরও। সম্ভাব্য দলবদল নিয়ে আলোচনায় রয়েছেন লিওনেল মেসি। তবে বার্সেলোনার এ আর্জেন্টাইন সুপারস্টারের অবস্থান ৯৭তম।
ফুটবলারদের বাজারমূল্য নিয়ে গবেষণা শেষে ওয়েবসাইট সিআইইএস অবজারভেটরি ইউরোপের সেরা পাঁচ লীগের (ইংল্যান্ড, স্পেন, ইতালি, জার্মানি, ফ্রান্স) খেলোয়াড়দের দামের তালিকা দিয়েছে। তালিকার ৯৭তম স্থানে মেসির দাম সিআইইএসের হিসাবে মাত্র ৫ কোটি ৪০ লাখ ইউরো। রোনালদো ও নেইমার সেরা ১০০-তেই নেই। ১৬ কোটি ৫৬ লাখ ইউরো দাম নিয়ে তালিকার শীর্ষে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের ইংলিশ স্ট্রাইকার মার্কাস রাশফোর্ড।
একজন খেলোয়াড়ের চুক্তিতে কত সময় বাকি আছে, তার বয়স, জাতীয় দলে খেলেন কি না, খেললে জাতীয় দলে কতটা গুরুত্বপূর্ণ, ক্যারিয়ার এই মুহূর্তে কোন পর্যায়ে আছে, পারফরম্যান্স কেমনÑ মূল্য নির্ধারণে এসব বিবেচনা করা হয়।

সঙ্গে বাজারের মুদ্রাস্ফীতির হিসাব করা হয়। আর ক্লাবের দিক থেকে বিবেচনায় নেয়া হয় ওই খেলোয়াড়ের ক্লাব মাঠের পারফরম্যান্সে ইউরোপে কোন পর্যায়ে আছে, আর্থিক দিক থেকেই বা ক্লাবের অবস্থা কেমন, এগুলো।
সবার উপরে থাকা রাশফোর্ডের বয়স এখন ২৩, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের সঙ্গে তার চুক্তি আছে ২০২৪ সাল পর্যন্ত। ইংল্যান্ড জাতীয় দলের গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড় রাশফোর্ডের ক্লাবের হয়ে ফর্মটাও খারাপ নয়।
রাশফোর্ডের পর তালিকার দুইয়ে বরুশিয়া ডর্টমুন্ডের ১৯ বছর বয়সী স্ট্রাইকার আর্লিং হলান্দ। নরওয়েজিয়ান ফরোয়ার্ডের দাম ১৫ কোটি ২০ লাখ ইউরো। তিনে লিভারপুলের ২২ বছর বয়সী ইংলিশ রাইটব্যাক ট্রেন্ট আলেক্সান্ডার-আরনল্ড। সিআইইএসের হিসাবে তার দাম ১৫ কোটি ১৬ লাখ ইউরো।

সিআইইএসের আগের তালিকায় শীর্ষে থাকা পিএসজির ফরাসি ফরোয়ার্ড কিলিয়ান এমবাপ্পে এবার নেমে গেছেন পাঁচে। পিএসজির সঙ্গে তাঁর চুক্তি ২০২২ সালে শেষ, সেটিই হয়তো এমবাপ্পের দাম কমে যাওয়ার কারণ। তার দাম দেখানো হচ্ছে ১৪ কোটি ৯৪ লাখ ইউরো।
তালিকার চারে উঠে এসেছেন ম্যান ইউনাইটেডের পর্তুগিজ মিডফিল্ডার ব্রুনো ফার্নান্দেজ। জাতীয় দলে রোনালদোর এই সতীর্থর দাম ধরা হয়েছে ১৫ কোটি ১১ লাখ ইউরো।

সেরা দশে অন্য পাঁচজন যথাক্রমে ইংলিশ ফরোয়ার্ড জেডন সানচো, অ্যাতলেটিকো মাদ্রিদের পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড জোয়াও ফেলিক্স, বায়ার্ন মিউনিখের কানাডিয়ান লেফটব্যাক আলফনসো ডেভিস ও ম্যানচেস্টার সিটির ইংলিশ উইঙ্গার রাহিম স্টার্লিং।

লিভারপুলের মিসরীয় ফরোয়ার্ড মোহামেদ সালাহ তালিকায় ১২তম। এই বছরের ফিফা বর্ষসেরা ফুটবলার রবার্ট লেভানদস্কি রয়েছেন ৫৫তম স্থানে। রোনালদোর দাম ৪ কোটি ৭০ লাখ ইউরো, তিনি তালিকায় ১৩১তম। নেইমারের দামের কথা কিছু লেখা হয়নি তালিকার বর্ণনায়। তবে সিআইইএসের ওয়েবসাইটে আলাদা ‘ভ্যালুস’ ট্যাবে গিয়ে দেখা যাচ্ছে, নেইমারের দাম দেখানো হচ্ছে মাত্র ৩ থেকে ৪ কোটি ইউরোর মধ্যে!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *