হাসতে হাসতে ক্লাসে ২৫ ছাত্রী অজ্ঞান

কুমিল্লা থেকে সংবাদদাতা : শিক্ষক পাঠদানে ব্যস্ত। এ সময় হঠাৎ শুরু হয় হাসাহাসি। প্রথমে বাড়াবাড়ি মনে না হলেও, কিছুক্ষণের মধ্যে হাসতে হাসতে জ্ঞান হারান ২৫ ছাত্রী। গতকাল সোমবার দুপুরে কুমিল্লা সদর উপজেলায় সৈয়দপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে এমন ঘটনা ঘটে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক নারায়ণ চক্রবর্তী জানান, সোমবার টিফিন পিরিয়ড শেষে পাঠদান শুরু হয়। দুপুর আড়াইটায় অষ্টম শ্রেণির ছাত্রীদের ক্লাসে পাঠদান করছিলেন শিক্ষক সুধাংশু ভূষণ দাস। হঠাৎ শ্রেণিকক্ষে দুই-তিন জন শিক্ষার্থী হাসাহাসি শুরু করে। এ সময় শ্রেণি শিক্ষক হাসির কারণ জানতে চাইলে অন্যরাও হাসি শুরু করে। হাসতে হাসতে একে একে অসুস্থ হয়ে পড়ে ২৫ শিক্ষার্থী। এ সময় পুরো বিদ্যালয়ে আতঙ্ক সৃষ্টি হয়।

তবে ঘটনার পর পরই শিক্ষকসহ অন্যরা অসুস্থ শিক্ষার্থীদের স্থানীয় কাবিলা ইস্টার্ন মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান বলে জানান নারায়ণ চক্রবর্তী।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক কল্যাণময় দেব জিৎ জানান, ‌‘অতিরিক্ত হাসির কারণে মাথাব্যথায় অজ্ঞান হয়ে পড়ে ওই শিক্ষার্থীরা। দুই-একজনের মধ্যে প্রথমে বিষয়টি দেখা দিলে বাকিরা আতঙ্কিত হয়ে অসুস্থ হয়ে যায়।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *